সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১০:১৫ পূর্বাহ্ন

বাতজ্বর বিধ্বংসী ঘাতক

রিপোর্টারের নাম / ১১৪ বার দেখা হয়েছে
আপডেট করা হয়েছে

ডা. মাহবুবর রহমান

বাতজ্বর নির্ণয় মূলত রোগের ইতিহাস ও লক্ষণনির্ভর। অর্থাৎ ল্যাব টেস্ট এখানে মূল ভূমিকা পালন করে না।  

বাতজ্বর কেন হয় : অস্বাস্থ্যকর ঘনবসতিপূর্ণ পরিবেশে শিশুরা একটি বিশেষ ব্যাকটেরিয়া (group A Streptococcus) দ্বারা সহজেই আক্রান্ত হয়। গলায় ইনফেকশন (pharyngitis), বারবার টনসিল আক্রমণ ইত্যাদি কারণে এই ব্যাকটেরিয়ার বিরুদ্ধে শরীর একটি এন্টিবডি তৈরি করে। সমস্যা হলো streptococcus জীবাণুর দেহকোষের প্রোটিনের সঙ্গে হার্টভাল্ব, গিরার ঝিল্লির প্রোটিনের প্রচুর মিল রয়েছে। ফলে জীবাণুর বিরুদ্ধে তৈরি হওয়া এন্টিবডি হার্টভাল্ব ও গিরার ঝিল্লির প্রোটিনের বিরুদ্ধে এক আত্মঘাতী যুদ্ধের সূচনা করে।

বাতজ্বরের লক্ষণ কী : প্রথমে কিছুদিন গলাব্যথা, হালকা কাশি, জ্বর। তারপর ২/৩ সপ্তাহ বিরতি। হঠাৎ গিরায় গিরায় ব্যথা। একটি বড় গিরা ব্যথা হয়ে ফুলে যাওয়া, কয়েক দিনের মধ্যে ভালো হয়ে আরেকটি বড় গিরা আক্রমণ। শ্বাসকষ্ট, বুকেব্যথা, জ্বর, খাদ্যে অরুচি, পায়ে পানি আসা, প্রচ- দুর্বলতাসহ বিছানালগ্ন হওয়া ইত্যাদি।

 

চিকিৎসক বুঝবেন কী করে : বাতজ্বর নির্ণয় মূলত রোগের ইতিহাস ও লক্ষণনির্ভর। অর্থাৎ ল্যাব টেস্ট এখানে মূল ভূমিকা পালন করে না। যে কারণে এই রোগটি অনেকের নজর এড়িয়ে যেতে পারে। এসব বিবেচনায় এনে বাতজ্বর সঠিকভাবে নির্ণয় করার জন্য major পাঁচটি এবং major পাঁচটি পয়েন্ট ঠিক করা হয়েছে। এগুলোকে Jones criteria বলা হয়। ক। মুখ্য লক্ষণ (major criteria):
১। গিরা প্রদাহ বা  migrating polyarthritis. ২। হৃৎপিন্ডের প্রদাহ  ৩। সিডেনহাম কোরিয়া, ৪। চর্মে গোটা বা subcutaneous nodules, ৫। চর্মে রক্তঝিল্লি বা  Erythema marginatum।

খ। গৌণ লক্ষণ (minor criteria): ১। গিরা ব্যথা (mono or polyarthalgia) ২। জ্বর। ৩। prolong PR interval in ECG

৪।  high ESR ৫।  high CRP

গ। পূর্ববর্তী ইনফেকশন এর প্রমাণ:

১। culture positive of group A streptococcus ২। high ASO।

রোগ নির্ণয় : দুটি মেজর লক্ষণ (নং ক) এবং ইনফেকশনের প্রমাণ (নং গ) অথবা একটি মেজর লক্ষণ (নং ক) ও দুটি গৌণ লক্ষণ (নং খ) এবং ইনফেকশনের  প্রমাণ (নং গ)। 

চিকিৎসা কি : প্রাথমিক প্রতিকার:

১। বাতজ্বর নির্ণয় হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে যেটা করতে হবে সেটা হলো রোগীকে পর্যাপ্ত শারীরিক বিশ্রাম দেওয়া। বিশ্রাম হার্টের ওপর কাজের চাপ কমায়। ফলে হার্ট দ্রুত সেরে উঠতে পারে। ২। Inj Benzyl penicillin 1.2 million units deep IM stat or Tab Penoxymethyl penicillin 250 mg 6 hourly for 10 days দিতে হবে।

৩। সাপোর্টিভ চিকিৎসা : গিরার তীব্র প্রদাহে অ্যাসপিরিন, হৃৎপিন্ডে প্রদাহে স্টিরয়েড।


লেখক : সিনিয়র কার্ডিওলজিস্ট, ল্যাবএইড কার্ডিয়াক হাসপাতাল, ধানমন্ডি, ঢাকা। 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
Theme Created By Limon Kabir